বাহরাইনে সাধারণ ক্ষমার মেয়াদ শেষ

বাহরাইনে সাধারণ ক্ষমার মেয়াদ শেষ

অনলাইন ডেস্ক: বিদায়ী বছরের ২ এপ্রিল অবৈধ অভিবাসীদের জন্য করোনা পরিস্থিতিতে ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত বাহরাইন সরকার ঘোষণা দেয় আজ থেকে শেষ হচ্ছে বাহরাইনে সাধারণ ক্ষমার মেয়াদ।

২০১৮ সালের ইমাম হত্যা ঘটনার পর যে আঁধারে এসে ঠেকছে বাংলাদেশের শ্রমবাজারে, সেই আঁধার কেটে আশার আলো দেখছেন প্রবাসীরা।

বাহরাইন বাংলাদেশ (লেবার কাউন্সিলর) শেখ মোহাম্মদ তৌহিদুল ইসলাম জানান, মোট অবৈধের সংখ্যা থেকে বৃহৎ সংখ্যার বাংলাদেশিরা বৈধ হয়েছেন। সহনীয় পর্যায় রয়েছে অবৈধের সংখ্যা। অন্তত আগের মতো অবৈধের সংখ্যা আর নেই।

কাউন্সিলর ও দূতালয়প্রধান মো. রবিউল ইসলাম জানান, দেশে আটকা পড়া প্রবাসীদের ফিরিয়ে আনার ক্ষেত্রে যতবার চেষ্টা করা হচ্ছে বাহরাইন সরকারের পক্ষ থেকে একবারও নিষেধ করা হয়নি।

বাহরাইনে ২ লাখ ২০ হাজার বাংলাদেশি প্রবাসীদের মধ্যে আনুমানিক ৬০ থেকে ৬৫ হাজার ছিল অবৈধ। এদের মধ্যে এ সুযোগ কাজে লাগিয়ে সেই সংখ্যা ২৫ হাজার থেকে ৩০ হাজারে নেমে এসেছে। তাই আমরা আশাবাদী এবং সে লক্ষ্যে আমাদের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে বলে জানিয়েছেন শ্রম সচিব।

বাহরাইনে নিযুক্ত রাষ্ট্রদূত ড. মো. নজরুল ইসলাম গত ২৩ ডিসেম্বর বাহরাইন সরকারের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কনস্যুলার অ্যাফেয়ার্স বিভাগের আন্ডার সেক্রেটারি শেখ রানা বিনতে ঈসা আল খলিফার সঙ্গে এক বৈঠকে মিলিত হন। বৈঠকে আলোচ্য বিষয়গুলো সম্পর্কে শেখা রানা বিনতে ঈসা আল খলিফা রাষ্ট্রদূতকে আশ্বস্ত করেন।

রাষ্ট্রদূত ড. মো. নজরুল ইসলাম বলেন, দেশে আটকা পড়া প্রবাসীদের ফেরাতে, মুয়াজ্জিনদের ভিসা নবায়ন এছাড়া দুই দেশের অর্থনৈতিক, বাণিজ্যিক, সাংস্কৃতিক ও ক্রীড়ার ক্ষেত্রে দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক উন্নয়নে গুরুত্বের সহিত প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন।

বিডি প্রভাত/আরকে

Spread the love