অসহায়দের মাঝে নিজেদের রেশন বিতরণ করে সেনাবাহিনীর সদস্যরা

দু:স্থদের মাঝে নিজেদের রেশন বিতরণ করলেন সেনাবাহিনীর সদস্যরা

হেলাল আহম্মেদ (রিপন), পটুয়াখালীঃ চলমান লকডাউন পরিস্থিতিতে নিজেদের রেশন সংকুলান করে পটুয়াখালীতে শতাধিক দু:স্থ ও কর্মহীন মানুষকে খাদ্য সহায়তা দিয়েছে সেনাবাহিনী।

আজ ৯ জুলাই শুক্রবার সকালে পটুয়াখালী হেতালিয়া বাধঘাট এলাকায় শাপাশি দুস্থ জনগণের কষ্ট ৭ পদাতিক ডিভিশনের ৪২ ফিল্ড রেজিমেন্টে আর্টিলারীর লাঘবে ত্রান কার্যক্রম পরিচালনা এই ত্রাণ বিতরণ কার্যক্রম পরিচালনা করেন।

বিতরণ কার্যক্রমে উপস্থিত ছিলেন ৪২ বীর ব্যাটালিয়নের উপ-অধিনায়ক মেজর আবুল হাসানাত পিএসসি। এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন ক্যাম্প কমান্ডার মিজান-উর-রশীদ ভূঁইয়া, ক্যাম্প উপ-অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট তানজিম ফাহিম হিমেল, সিনিয়র ওয়ারেন্ট অফিসারমোহাম্মদ রফিকুল হাসান প্রমুখ।

পটুয়াখালী সদর সহ গলাচিপা উপজেলার বিভিন্ন  ইউনিয়নে শতাধিক কর্মহীন, দু:স্থ ও অসহায়দের মাঝে এসব খাদ্য সামগ্রি বিতরণ করা হয়। ত্রাণ প্যাকেটে ছিল ৫ কেজি চাল, ১ কেজি আটা, ৫শ’ গ্রাম ডাল, ৫শ’ গ্রাম লবন ও ১টি করে সাবান। লকডাউন চলাকালিন সময়ে এসব খাদ্য সামগ্রি পেয়ে খুশি তালিকাভূক্তরা।

ত্রাণ বিতরণ শেষে সেনাবাহিনীর কর্মকর্তা আওলাদ হোসেন  জানান, লকডাউন বাস্তবায়নে সেনাবাহিনী সরকারের নির্দেশনা মোতাবেক কাজ করছে। পাশাপাশি হতদরিদ্রদের কথা বিবেচনা করে নিজেদের রেশন বাঁচিয়ে অসহায়-দুস্থদের চিহ্নিত করে তাদের পাশে দাঁড়াচ্ছে। ইতোমধ্যে পটুয়াখালীর বিভিন্ন উপজেলায় প্রায় ৫ শতাধিক অসহায় ও দু:স্থ পরিবারকে খাদ্য সামগ্রি বিতরণ করেছে। এই কার্যক্রম চলমান থাকবে বলে জানান তারা।

করোনা মহামারির দ্রুত বিস্তার রোধে গনপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের আদেশে এবং সেনাবাহিনীর প্রধানের নির্দেশনায় অতীতের মত এবারো বাংলাদেশ সেনাবাহিনী দেশ ও জনগণের সেবায় নিয়োজিত রয়েছে। অপারেশন কোভিট শিন্ড এর ২য় ধাপে আমরা আমাদের দায়িত্বপূর্ন এলাকায় ব্যপক টহলের পাশাপাশি দুস্থ জনগণের কষ্ট ৭ পদাতিক ডিভিশনের ৪২ ফিল্ড রেজিমেন্টে আর্টিলারীর লাঘবে ত্রান কার্যক্রম পরিচালনা করেছেন।নিজস্ব রেশন থেকে বাচিঁয়ে এই ত্রানের ব্যবস্থা করা হয়েছে। বাংলাদেশ সেনাবাহিনী সবসময় দেশের মানুষের পাশে আছে এবং থাকবে এমনটাই আশা ব্যাক্ত করেন।

বিডি প্রভাত/আরএইচ