অপরূপ সৌন্দর্যের এক প্রাকৃতিক স্থান ‘পদ্মছড়া লেক’

অপরূপ সৌন্দর্যের এক প্রাকৃতিক স্থান ‘পদ্মছড়া লেক’

মোঃ জুনেদ আহমদ: যত দূর চোখ যায় সবুজের হাতছানি। চা বাগানের সারি সারি টিলা, আঁকাবাঁকা পাহাড়ি পথ আর ঘন সবুজ অরণ্যের অপরূপ সৌন্দর্য যে কাউকেই আকৃষ্ট করে। তাই দেশ বিদেশের পর্যটকরা বার বার ছুটে আসেন চায়ের রাজধানীখ্যাত মৌলভীবাজারের চিরসবুজের শোভা আর বৃষ্টিস্নাত পাহাড়ি সৌন্দর্য দেখতে।

সম্প্রতি এখানকার আরেকটি দর্শনীয় স্থান পদ্মছড়া লেক পর্যটকদের মাঝে ব্যাপক সাড়া জাগিয়েছে। লেক ছাড়াও উঁচু নিচু সবুজ পাহাড়ি টিলাগুলো যেন হাতছানি দিয়ে কাছে ডাকে। সদ্য আবিষ্কৃত এই লেকটি ক্রমেই পর্যটকদের কাছে আকর্ষণীয় হয়ে ওঠছে।

সবুজ পাহাড় আর প্রকৃতির মেলবন্ধনে এক স্বর্গীয় অনুভূতি পেতে আসা প্রকৃতিপ্রেমীদের সংখ্যা দিন দিনই বাড়ছে। প্রতিদিনই এখানে আসছেন ভ্রমণপিপাসুরা। বন্ধু, স্বজন, পরিবার-পরিজন নিয়ে আনন্দভ্রমণ করছেন।

পদ্মছড়া লেকে প্রবেশ করতেই পাহাড় আর টিলার মাঝখানের অপরূপ লেকটি বিমোহিত করে তুলবে আপনাকে। দেখতে পাবেন নিস্তব্দ পরিবেশে চারদিকে সবুজের মহাসমারোহ। নাকে এসে লুটোপুটি খাবে সবুজ চা পাতার ঘ্রাণ। পলকেই আপনার মনকে চাঙ্গা করে তুলবে এই প্রকৃতি।

বিমোহিত হয়ে মিলিয়ে যাবেন প্রকৃতির অপার সৌন্দর্যে। লেকের পানি, সুনীল আকাশ আর শ্যামল সবুজ পাহাড়, ছবির মতো চা বাগানের মনোরম দৃশ্য আপনাকে নিয়ে যাবে স্বপ্নের জগতে।

জেলার শ্রীমঙ্গল আর কমলগঞ্জের যেদিকে চোখ যায় উঁচু নিচু পাহাড়, টিলা, চা বাগানের সারি, পাহাড়ি ঝর্ণা। চারদিকে প্রকৃতির নজরকাড়া সৌন্দর্য, হাজার প্রজাতির গাছ-গাছালি, পাহাড় ও বনাঞ্চল পরিবেষ্টিত নদী, ছড়া, ঝর্ণা, জলপ্রপাত আর দিগন্তজোড়া হাওরের নীল জলরাশির ঢেউয়ের ছন্দে প্রাণ জুড়িয়ে যায়।

কমলগঞ্জকে যেনো প্রকৃতি নিজের হাতে অপরূপ রূপে সাজিয়েছে। হামহাম জলপ্রপাত, লাউয়াছড়া জাতীয় উদ্যান, ক্যামেলিয়া লেক, বীরশ্রেষ্ট মতিউর রহমানের সমাধি, বি এ এফ শাহীন কলেজ, মাধবপুর লেক, শমসেরনগর বিমান বন্দর ছাড়াও রয়েছে অনেক দর্শনীয় স্থান। এসব দর্শনীয় স্থান খুব সহজেই টানে পর্যটকদের।

যেভাবে যাবেন – দেশের যেকোনো প্রান্ত থেকে বাস, ট্রেনযোগে মৌলভীবাজারের শমসেরনগর যাওয়া যায়। শ্রীমঙ্গল রেলস্টেশন থেকেও বাস বা সিএনজি নিয়ে খুব সহজেই পৌঁছে যাওয়া যাবে ভানুগাছ বা শমসেরনগর। আর সেখান থেকে সিএনজি নিয়ে যাওয়া যাবে পদ্মছড়ায়।

কোথায় থাকবেন- শমসেরনগরে থাকার ব্যবস্থা আছে। তবে একটু ভালো থাকার ব্যবস্থা চাইলে শ্রীমঙ্গলকে বেছে নিতে পারেন। পাঁচতারকা হোটেল থেকে শুরু করে মাঝারি ও স্বল্প খরচে থাকার ব্যবস্থাও রয়েছে এখানে। তাছাড়া খাবার জন্য শ্রীমঙ্গল শহরে হোটেল পানসি, হোটেল কুটুমবাড়ি, লন্ডন হোটেলসহ অসংখ্য রেস্টুরেন্ট রয়েছে।

বিডি প্রভাত/জেইচ